মুফতি নূরুল আমীন সাহেব (দাঃবাঃ) এর জীবন ও কর্ম

মুহিউসসুন্নাহ শাহ মুফতি নূরুল আমীন সাহেব দাঃ বাঃ এর সংক্ষিপ্ত জীবনী

নাম:

নূরুল আমীন

জন্ম:

তিনি ১৯৫৫ ঈ সনে মাগুরা জেলার শাজিরকান্দী গ্রামের ঐতিহাসিক মুন্সি পরিবার ওরফে হাজী বাড়ীতে জন্ম গ্রহন করেন।

পিতা:

জনাব আলহাজ্ব আবু বকর সিদ্দিক (রহ.) যিনি বহুমুখী প্রতিভার অধিকারী একজন মহান ব্যক্তিত্ব ছিলেন। যিনি আপন উস্তাদ, শাইখ ও মুরব্বীগণের নেক নজর ও আপন ইখলাস ওয়ালা মেহনতের বদৌলতে ‘বড় উস্তাদজী’ উপধীতে ভুষিত হন।

মাতা:

তাঁর মাতার নাম ‘চেমন আফরোজ’ জিনি একজন রত্নগর্ভা মহিয়সী রমনী ছিলেন। যিনি মাগুরার শাজিরকান্দী গ্রামের এক সম্ভ্রান্ত দ্বীনি পরিবারে জন্ম গ্রহন করেন। পারিবারিক জীবনে তিনি ছিলেন একজন আদর্শ বধু, আদর্শ মা, সম্ভ্রান্ত ও শিক্ষিত রমনী এবং দ্বীনি পরিবার গঠনের সুদক্ষ কারিগর।

শিক্ষাদীক্ষা:

প্রাথমিক শিক্ষা: তিনি প্রথমিক শিক্ষা অর্জন করেন মাগুরার শিমুলিয়া মাদরাসা ও যশোর রেল স্টেশন মাদরাসা হতে।
দাওরাতুল হাদিস: জামিয়া আহলিয়া দারুল উলুম হাটহাজারী (১৯৭৯) এবং দারুল উলূম দেওবন্দ ভারত (১৯৮০)
উচ্চতর শিক্ষা: উচ্চতর ইসলামী আইন (ইফতা) দারুল উলুম দেওবন্দ (১৯৮১)

কর্মজীবন:

দারুল উলুম খুলনা এ (১৯৮২-২০০২) পর্যন্ত সিনিয়র উস্তাদ ও মুফতী হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।

বিবাহ:

১৯৮১ সনে মাগুরা জেলার সত্যপুর গ্রামের সম্ভ্রান্ত ব্যাক্তি জনাব মাষ্টার হাফিজুর রহমান সাহেব এর বড় কন্যার সাথে তাঁব শুভ বিবাহ হয়।

সন্তান সন্ততি:

৪ ছেলে ও ৬ মেয়ে। (এক ছেলের ওফাত হয়েছে)
কন্যাদের সকলের বিবাহ হয়ে গেছে এবং তিন ছেলের মাঝে বড় ছেলের বিবাহ সম্পন্ন হয়েছে। বাকী দুইজন অধ্যায়রত আছে। তারা দুইজন হাফেজে কুরআন।
ছেলেদের নামের তালিকা 

বড় ছেলে: মরহুম আবরারুল হক
মেজো ছেলে: মিয়াজি মুহাম্মাদুল্লাহ
সেজো ছেলে: হাফেজ আনাস আমীন (অধ্যায়নরত)
ছোট ছেলে: হাফেজ যায়েদ আবরার (অধ্যায়নরত)

মেয়ের জামাতাগনের নামের তালিকা:
বড় জামাতা: মুফতি আব্দুর রহীম (মুহাদ্দিস: গোয়ালখালী রশিদিয়া মাদরাসা, খুলনা)
মেজো জামাতা: মুফতি আঃ আউয়াল (শিক্ষক: ……………….. খতীব : …………)
সেজো জামাতাঃ মুফতি রায়হান (মুহতামীম: ……   )
৪র্থ জামাতা: মুফতি জাহিদুল ইসলাম (ইমাম ও খতীব…….)
৫ম জামাতা: মুফতি মাহদী হাসান (মুহতামীম: …………..)
৬ষ্ঠ জামাতা: মাওলানা সাদিকুর রহমান সাইম  (মারকাযুদ দাওয়ায় ইফতা বিভাগে অধ্যায়নরত)

ভাই বোন:

 তাঁরা নয় ভাই ও পাঁচ বোন। (এক বোনের ওফাত হয়েছে) আল্লাহর রহমতে বাকীরা সবাই এখনো জীবিত আছেন।

নিম্নে ভাইদের সংক্ষিপ্ত পরিচয় তুলে ধরা হলো-
এক:
মাওলানা রূহুল আমীন
তিনি ভাই বোনদের মধ্যে সবার বড়। তিনি হাটহাজারী মাদরাসা থেকে দাওরায়ে হাদীস পাশ করে প্রথমে মাগুরার প্রাচীন ও ঐতিহ্যবাহী শিমুলিয়া মাদরাসায় কয়েক বছর শিক্ষকতা করেন। তখন তিনি বাড়ি থেকে আসা যাওয়া করতেন। তাই সকালে পাশের গ্রাম ঘোড়ানাছ এ মক্তবেও পড়াতেন। তিনার নিকট মক্তবে পড়া ছাত্রদের মধ্যে এলাকার অনেকেই হাফেজ আলেম মুফতী মুহাদ্দিস হয়ে দ্বীনি খেদমতে নিয়োজিত আছেন। এরপর তিনি চলে আসেন ঢাকার কামরাঙ্গির চরে, হাফেজ্জী হুজুর (রহ.)-এর মাদারাসায়ে নূরিয়াতে। এখানে তিনি সুনামের সাথে দীর্ঘ ৩২ বছর যাবত শিক্ষকতার কাজে নিয়োজিত আছেন। এ ছাড়াও মাদরাসার উন্নয়নমূলক যাবতীয় কাজের তদারকী তারই উপর ন্যস্ত থাকে।

সাংগঠনিক পদ:  আস- সিদ্দিক ফাউন্ডেশনের প্রধান উপদেষ্টা

দুই:
পীরে কামেল মুফতী নূরুল আমীন সাহেব

তিন:
মাওলানা ফজলুল করীম যশোরী
১৯৮৮ সালে লালবাগ মাদরাসা থেকে দাওরায়ে হাদীস কোর্স সমাপ্তকারী। আলহামদুলিল্লাহ বয়স্ক কোরআন শিক্ষার জগতে আবু বকর সিদ্দিক (রহ.) এর পদ্ধতির আলোকে প্রতিষ্ঠিত ও বাংলাদেশ মাদানী তালীমুল কোরআন বোর্ড ও ইসলামিক এডুকেশন রিসার্চ একাডেমীর নামে কার্যক্রম শুরু করার পর সীমিত সময়ের মধ্যে ৭দিনে কোরআন শিক্ষার কোর্সে শরীক হয়ে যারা সহীশুদ্ধ কোরআন শিক্ষার যোগ্যতা অর্জন করতে সক্ষম হয়েছে। শিশু ও প্রথমিক শিক্ষার জগতে আলোড়ণ সৃষ্টিকারী পদ্ধতী আবিষ্কার করে এবং চমৎকার পুস্তক রচনা করে ইতিমধ্যে বেশ সুনাম অর্জন করেছে।

সাংগঠনিক পদ: আস- সিদ্দিক ফাউন্ডেশনের শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক।

চার:
মুফতী মুমতাজুল করীম
তার শিক্ষাগত যোগ্যতা নিম্নরূপ:
১. দাওরায়ে হাদীস, দারুল উলূম দেওবন্দ ভারত।
২. ইফতা, দারুল উলূম খুলনা, বাংলাদেশ।
৩. কামিল হাদীস, বাংলাদেশ মাদরাসা শিক্ষাবোর্ড।
তিনি বর্তমানে দ্বীনের বিভিন্ন কর্মকাণ্ডে জড়িত রয়েছেন। যথা-
ক. শাইখুল হাদীস ও প্রতিষ্ঠাতা মুহতামিম খাদিজাতুল কুবরা মহিলা মাদরাসা, খুলনা।
খ. খতীব, শেখপাড়া জামে মসজিদ, খুলনা।
গ. পরিচালক, হজ্জ কাফেলা, খুলনা।
ঘ. প্রধান সহকারী, খানকায়ে ইমদাদিয়া, খুলনা।
আল্লাহ তাআলা তাকে যথেষ্ট মেধা, জ্ঞান-বুদ্ধি ও বিচক্ষণতার অধিকারী বানিয়েছেন। বলা চলে জ্ঞান-বুদ্ধি ও অর্থ সম্পদে তিনি বংশের সকলের  চেয়ে অগ্রগামী।

সাংগঠনিক পদ: আস- সিদ্দিক ফাউন্ডেশনের সভাপতি

পাঁচ:
আহমদ করিম সিদ্দীক সিদ্দীক
শিক্ষাগত যোগ্যতা:
১. হাফিযুল কুরআন
২. দাওরায়ে হাদীস [ফার্স্ট ক্লাশ] (দারুল উলূম, দেওবন্দ, ভারত)
৩. উচ্চতর আরবী সাহিত্য, [ফার্স্ট ক্লাশ] (দারুল উলূম দেওবন্দ ভারত)
৪. কামিল হাদীস [ফার্স্ট ক্লাশ] (মাদরাসা শিক্ষা বোর্ড, বাংলাদেশ)
শিক্ষকতা: সুদীর্ঘ ২০ বছর যাবৎ বুখারী শরীফ প্রথম খণ্ডের পাঠদানে কর্মরত। [বর্তমানে একাধিক মাদরাসার শাইখুল হাদীস।
স্বরচিত ও অনূদিত গ্রন্থবালী
১. মুকাম্মাল লুগাতুল কুরআন, [স্বরচিত] বিষয়: আরবী-বাংলা কুরআনের অভিধান, খন্ড: ১ ও ২ প্রকাশকাল: ২০১৫ প্রকাশনায়: ইসলামিয়া কুতুবখানা, বাংলাবাজার, ঢাকা
২. তুহফাতুল বারী শরহু সহীহিল বুখারী [স্বরচিত] বিষয়: বুখারী শরীফের ভাষ্যগ্রন্থ, খন্ড: ১-১৮, [প্রতি খন্ডে ৯০০-১০০০ পৃষ্ঠা] প্রকাশকাল: ২০১৪ ইং, প্রকাশনায়: মাকতাবাতুল ফাতাহ বাংলাদেশ, ১১/১, বাংলাবাজার ঢাকা
৩. ফরহাঙ্গে কাসেমী, [স্বরচিত] বিষয়: উর্দূ-বাংলা অভিধান, প্রকাশকাল: ২০০০, প্রকাশনায়: কাসেমিয়া লাইব্রেরী, বাংলাবাজার, ঢাকা
৪. মুখতাসারুল কুদুরী, [স্বরচিত] বিষয়: ইসলামী ফিকহ ভাষ্যগন্থ, প্রকাশকাল: ২০১৫, প্রকাশনায়: মাকতাবাতুল ফাতাহ বাংলাদেশ, ১১/১, বাংলাবাজার ঢাকা।
৫. মুখতাসারুল মা‘আনী, [স্বরচিত] বিষয়: অলংকারশাস্ত্র, প্রকাশকাল: ২০১৫, প্রকাশনায়: মাকতাবাতুল ফাতাহ বাংলাদেশ, ১১/১, বাংলাবাজার ঢাকা
৬. আল কামূসুল ওয়াহিদ, [আরবী থেকে অনুবাদ] বিষয়: আরবী অভিধান, খণ্ড : ১ ও ২, [প্রায় ২০০০ পৃষ্ঠা] পরিচিতি, আরবি অভিধান রচনার ধারবাহিকতার সর্বশেষ উল্লেখযোগ্য সংযোজন হলো দারুল উলূম দেওবন্দ-এর উসতাযুল আদব ওয়াল হাদীস অভিধানবিদ আল্লামা ওয়াহিদুজ্জামান কিরানবী (র.) [১৯৩০-১৯৯৫] রচিতالقاموس الوحيد; এটি معجم بين المعاجم [অনেকগুলি অভিধানের সমন্বিত] জাতীয় একটি অভিধান। এটি এখনও অপ্রকাশিত: তবে প্রকাশের অপেক্ষায় আছে।
৭. নাসরুল বারী, সহীহ বুখারীর ভাষ্যগ্রন্থ [ উর্দু থেকে অনুবাদ] বিষয়: হাদীসের ভাষ্যগ্রন্থ, ১-১০ খন্ড, [প্রতি খন্ড ৮০০-৯০০ পৃষ্ঠা] প্রকাশনার সাল, ২০১৬, প্রকাশনায়: ইসলামিয়া কুতুবখানা, বাংলাবাজার, ঢাকা।
৮. মিসবাহুল্লগাত, [আরবী-বাংলা] বিষয়: আরবী-বাংলা অভিধান, খণ্ড : ১, প্রকাশনার সাল, ২০১০, প্রকাশনায়: ইসলামিয়া কুতুবখানা, বাংলাবাজার, ঢাকা।
৯. আল কামূসুল জাদীদ, [আরবী-বাংলা] বিষয়: আধুনিক আরবী-বাংলা অভিধান, খন্ড: ১, প্রকাশকাল: ২০০৫, প্রকাশনায়: ইসলামিয়া কুতুবখানা, বাংলাবাজার, ঢাকা
১০. আল কামূসুল ইসতিলাহী [আরবী-বাংলা অনুবাদ] বিষয়: ব্যবহারিক আরবী-বাংলা অভিধান,
এছাড়াও অসংখ্যা অনুবাদ ও রচনা রয়েছে যা এই স্বল্প পরিসরে উল্লেখ করা সম্ভব নয়।

সাংগঠনিক পদ: আস- সিদ্দিক ফাউন্ডেশনের সিনিয়র সহ সভাপতি।

ছয়:
হাফেজ মোহাম্মদ রিজাউল করিম
সে একজন ভালো হাফেজ। কিতাবখানাতে জলালাইন পর্যন্ত অধ্যায়ন করেছে। নিজ এলাকার মাদরাসা এবং বাবার প্রতিষ্ঠিত ঘোড়ানাছ মসজিদের ইমাম ও খতিব হিসেবে খেদমতে নিয়োজিত আছে। এছাড়া মাগুরা জেলার হাফেজী ও নূরানী মাদরাসাসমূহের তদারকীর জিম্মাদারীসহ ধর্মীয় সকল ইন্তেজামে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে থাকে। মাগুরা জেলার ওলামায়ে কেরামের সাথে সব কর্মসূচীতেই অগ্রণী ভূমিকা পালন করে থাকে।

সাংগঠনিক পদ: আস- সিদ্দিক ফাউন্ডেশনের সহ সভাপতি।

সাত:
হাফেজ ইমাম উদ্দীন
সে সবার চেয়ে ব্যতিক্রম। অনেক বড় বড় মনিষিদের দেখা যায়, প্রয়োজনীয় দ্বীনি এলেম শিখার পর কোন এক ছেলেকে ব্যবসা-বানিজ্য নিয়োজিত করেছেন। সে একজন ভাল হাফেজ হেদায়া পর্যন্ত কিতাব খানায় পড়ে তাবলীগ জামাতে তিন চিল্লা দিয়েছে। দ্বীনি ফিকির এবং দাওয়াতী কর্মকান্ডে তার রয়েছে সক্রিয় ভূমিকা। আত্মীয়-স্বজন বন্ধু-বান্ধব পাড়া প্রতিবেশী কার কোথায় কি সমস্যা, কে হাসপাতালে ভর্তি আছে, তার দেখাশুনা, সাথে আগত লোকদের থাকা-খাওয়া, ইত্যাদির ব্যবস্থা করা।

সাংগঠনিক পদ: আস- সিদ্দিক ফাউন্ডেশনের সাধারণ সম্পাদক।

আট:
মাওলানা মোসলেহ উদ্দীন
সে হাটহাজারী মাদরাসা থেকে দাওরায়ে হাদীসের সনদপ্রাপ্ত। মাশাআল্লাহ সে বহু গুণের অধীকারী। নিঃস্বার্থ খেদমতে খালকের গুণ তার মাঝে রয়েছে।বর্তমানে সে ঢাকায় ব্যাবসায় নিয়োজিত আছে।

সাংগঠনিক পদ: আস- সিদ্দিক ফাউন্ডেশনের কোষাধ্যাক্ষ।

নয়:
হাফেজ মাওলানা মুফতি মিসবাহুদ্দীন
ক. হাফিজুল কুরআন
খ. দাওরাতুল হাদিস: বসুন্ধরা মাদরাসা থেকে দাওরা হাদীসের সনদপ্রাপ্ত।
গ. ইফতা: বড় কাটারা মাদরাসায় ইফতা বিভাগে অধ্যায়ন করেছে। আলহামদুলিল্লাহ!
ঘ. আরবী ভাষা ও সাহিত্যের প্রতি বেশ অনুরাগী।
সে অনেক মেধাবী। বর্তমানে সে জামিয়া আরাবিয়া লিল বানাত সোনারং টংগিবাড়ী মুন্সিগঞ্জ এর সিনিয়র শিক্ষক ও মুহাদ্দিস এবং সহকারী নাজেমে তালীমাত। উক্ত মাদরাসার কমিটির শিক্ষক প্রতিনিধি পদে রয়েছে।
সাংগঠনিক পদ: আস- সিদ্দিক ফাউন্ডেশনের যুগ্ম সাধারাণ সম্পাদক।

ভগ্নিপতিগণ:

এক:
মরহুম মাষ্টার গাউসুর রহমান

দুই:
মরহুম মোঃ রিজাউল কবীর

তিন:
আলহাজ্ব হাফেজ মাওলানা বদরুদ্দীন (শিক্ষক: জামিয়া ইসলামিয়া দড়াটানা যশোর, খতীব: মোল্লাপাড়া গোস্থান জামে মসজিদ, যশোর)

তিন:
আলহাজ্ব মাওলানা আব্দুল আজীজ (রহ.) [যিন হজ্র ব্রত পালনরত অবস্থায় মৃত্যু বরণ করেন এবং তাঁর কবর মক্কার হাজী সাহেবগণের কবরস্থানে]

আসাতিযাগণ:

স্বদেশে: মুফতি আব্দুল্লাহ মাগুরার হুজুর দা. বা, মুফতি আলী আকর রহ., মাওলানা রজব আলী রহ., মাওলানা আবুল হাসান রহ., মুফতি ফয়জুল্লাহ রহ, মুফতি আহমাদুল হক রহ. মাওলানা শাহ আহমাদ শফী দা. বা. প্রমুখ যুগশ্রেষ্ঠ বুজুর্গ আলেমগণ।

দেওবন্দে: কারী তৈয়্যব রহ. মুফতি মাহমুদুল হাসান গাঙ্গুহী রহ. মাওলানা ফখরুল হাসান রহ., মাওলানা নাসির আহমাদ খাঁন রহ. মাওলানা আনযার শাহ কাশ্মীরী রহ. মাওলানা ওয়াহিদুযযামান কিরানভী রহ. মুফতি সাঈদ আহমাদ পালনপূরী রাহিমাহুমুল্লাহ।

তিনি যার খলীফা:

তিনি আরেফ বিল্লাহ হযরত মাওলানা শাহ হাকীম মুহাম্মাদ আখতার (রহ.) ও হযরত মাওলানা শাহ মাহমুদুল হাসান দা. বা. এর খলীফা।

শাইখের সহচর্য:

১৯৮২-৮৩ সালে বাইআত হওয়ার পর থেকে করাচী হযরত রহ. বাংলাদেশে আসলেই তিনি সার্বক্ষণিক তার শাইখের সোহবতে থাকতেন। এছাড়া চারবার করাচীর খানকায় সফর করেছেন। এর মঝে ১৯৯৭ ও ২০০২ করাচীর খানকায় চিল্লা দিয়েছেন। অন্য দুইবার ২০/২২ দিন খানকায় থেকে নিজ শাইখের সোহবতে ধন্য হয়েছেন।

খেলাফত লাভ:

নব্বইয়ের দশকেই যশোর ঝিকরগাছা বাকুড়া মাদরাসায় বসেই করাচী হযরত রহ. তাঁকে খেলাফত প্রদান করেন।পরবর্তীতে যাত্রাবাড়ীর হযরতও তাঁকে খেলাফত প্রদান করেন।

শাগরেদ:

তিনি যাদেরকে বাইয়াত ও ইসলাহের অনুমতি দিয়েছেন (খেলাফত দিয়েছেন) তাদের সংখ্যা শাতাধিক হবে। যারা বাংলাদেশের বিভিন্ন স্থানে আপন আপন যায়গায় ইসলাহে উম্মতের কাজ আঞ্জাম দিচ্ছেন।

বংশে উলামায়ে কেরাম:

তাঁর ভাই বোন এবং সন্তান সন্ততি সহ পরিবারের সদস্যদের সংখ্যা ২৩৮ জন। যাদের মধ্যে হাফেজ ৬৭ জন এবং মাওলানা ৬৫ জন ও মুফতি ২৬ জন। এদের মাঝে অনেকে অধ্যায়ন রত তথা আলেম হওয়ার পথে।

খানকাহ ও ঠিকানা:

খানকাহ ইমদাদিয়া আশরাফিয়া, গুলশানে শাইখ হযরত মাওলানা শাহ হাকিম মুহাম্মাদ আখতার সাহেব দা. বা. রহ. ফাতেমাবাগ, জিরো পয়েন্ট, খুলনা।

ওয়েব সাইট:

ওয়েব সাইট: www.nurbd.net
ফেসবুক পেজ: https://facebook.com/khanqahimdadiakhulna

দ্বীনি প্রগ্রাম:

প্রতি আরবী মাসের ২য় শুক্রবার মাসিক ইজতেমা। প্রতি বৃহঃবার বাদ আসর ইসলাহী মজলিস ও শবগুজারী। প্রতি শুক্রবার বাদ ফজর মজলিসে দাওয়াতুল হক এর সাপ্তাহিক মজলিস। এছাড়া প্রতিদিনই দেশব্যাপী বিভিন্ন মসজিদ, মাদরাসা ও খানকায় হযরতের প্র্রগ্রাম চলমান।

পারিবারিক সংগঠন:

আস-সিদ্দীক ফাউন্ডেশন
শাহজিরকান্দি, মুসাপুর বাজার, মাগুরা।
মোবাইল : 01712-544865, 01712-572359, 01967-119283
ওয়েসবাইট: www.assiddik.com
ইমেইল : info@assiddik.com, assiddik.com@gmail.com

সাংগঠিনিক পদ: উপদেষ্টা আস-সিদ্দিক ফাউন্ডেশন